ইশা ছাত্র আন্দোলন মহানগরের দায়িত্বশীল তারবিয়াত অনুষ্ঠিত

110

প্রেস বিজ্ঞপ্তিঃ শুক্রবার সকাল ৯টা ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন নারায়ণগঞ্জ মহানগর শাখার উদ্যোগে সভাপতি মুহাম্মাদ ইমদাদুল হক-এর সভাপতিত্বে, প্রশিক্ষণ সম্পাদক এইচ এম মিরাজুল ইসলাম-এর সঞ্চালনায় দায়িত্বশীল তারবিয়াত অনুষ্ঠিত হয়। উক্ত তারবিয়াতে প্রধান মেহমান হিসেবে গুরুত্বপূর্ণ দিকনির্দেশনা মূলক তারবিয়াত প্রদান করেন ইসলামী শাসনতন্ত্র ছাত্র আন্দোলন কেন্দ্রীয় জয়েন্ট সেক্রেটারি জেনারেল নূরুল করিম আকরাম।

প্রধান মেহমান তার তারবিয়াতি আলোচনা বলেন, “যিনি কলমের সাহায্যে জ্ঞান শিখিয়েছেন। মানুষকে এমন জ্ঞান শিখিয়েছেন, যা সে জানত না।” (সূরা আলাক)

ইলম অর্জনের পর দায়িত্ব হলো ইলমের ওপরে যথাযথ আমল করা। আমলে সালেহ ব্যতীত ব্যক্তি নাজাত; এমন কি ইসলামী হুকুমত প্রতিষ্ঠাও সম্ভাব নয়। সমাজ ও রাষ্ট্রে ইসলামী বিধিবিধান প্রতিষ্ঠার পূর্বে ইসলামের আলোকে (ব্যক্তিজীবনকে) নিজেকে যোগ্য করে গড়ে তোলা জরুরী। আর যোগ্য ব্যক্তিত্ব তৈরির মাধ্যমে যোগ্য নেতৃত্বের চাহিদা পূরণ সম্ভব। যথাযথ জ্ঞানার্জন ব্যতিত যোগ্য নেতৃত্ব আদৌ কল্পনা করা যায় না। এজন্যই ইশা ছাত্র আন্দোলনকে ইসলামী সমাজবিপ্লবের যোগ্য নেতৃত্ব হিসেবে গড়ে তোলার লক্ষ্যে জ্ঞানার্জনের প্রতি সর্বাধিক গুরুত্ব দিতে হবে। জ্ঞানার্জন ও চরিত্র গঠনের মাধ্যমে সমাজব্যবস্থার নেতৃত্ব ঢেলে সাজানোই হবে আমাদের এ কর্মসূচির সফল প্রাপ্তি।

সভাপতি তার উদ্বোধনী আলোচনায় বলেন, জ্ঞানার্জনের গুরুত্ব ও প্রয়োজনীয়তা অপরিসীম। আল্লাহ তা’আলা প্রতিটি মুসলমানদের জন্য জ্ঞানার্জন ফরজ করে দিয়েছেন। আল্লাহ তা’আলা বলেন “বস্তুত আল্লাহর বান্দাদের মাধ্যে কেবল ইলমসম্পন্ন লোকেরাই তাঁকে বেশি ভয় করে।” সূরা ফাতির

শুধু জ্ঞানার্জনই যথেষ্ট নয়,জ্ঞান যথাযথভাবে কার্যকর করার জন্য এই প্রশিক্ষণ। যেকোন বিজয় বা সফলতার জন্য দরকার একদল আদর্শ, যোগ্য কর্মীবাহীনি। আমাদেরকে সে আদর্শ, যোগ্য কর্মীবাহীনি হিসেবে তৈরি হরে হবে। ইশা ছাত্র আন্দোলনের কর্মীবাহীনিকে জাগতিক জ্ঞানের সাথে সাথে আধ্যাত্মিক পরিশুদ্ধতাও অর্জন করতে হবে। সমাজ ও জাতিকে নেতৃত্ব দেওয়ার জন্য নিজেকে সার্বিকভাবে হড়ে তোলাই একজন কর্মীর প্রধান কাজ।

আরো উপস্থিত ছিলেন, আরো উপস্থিত ছিলেন, সহ-সভাপতি এম. শফিকুল ইসলাম,সাধারণ সম্পাদক, সাংগঠনিক সম্পাদক আহমাদ কবির, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক তাজউদ্দীন আহমদ,অর্থসম্পাদক ওমর ফারুক,দফতর সম্পাদক এইচ এম শাহীন আদনান,কওমী সম্পাদক শেখ মুহাম্মাদ ইকবাল হোসাইন, আলিয় মা. সম্পাদক মুহাম্মাদ যোবায়ের হোসেন,কলেজ সম্পাদক মুহাম্মাদ আশরাফ আলী,স্কুল সম্পাদক মুহাম্মাদ সোহেল হোসাইন, ছাত্র কল্যাণ সম্পাদক মুহাম্মাদ শরিফ হুসাইন , সাহিত্য ও সংস্কৃতি বি.সম্পাদক মুহাম্মাদ জাহিদুল ইসলাম,সদস্য আবুল হাশিম, সদস তাওহিদুল ইসলাম।

নিউজটি শেয়ার করুন...