মঙ্গলবার, ২৫ জুন ২০২৪, ০১:০১ পূর্বাহ্ন

ঈদের পর সাংবাদিকদের নিয়ে মাঠে নামবেন শামীম ওসমান

নারায়ণগঞ্জের খবর: ঈদের পর সাংবাদিকদের নিয়ে মাঠে নামবেন শামীম ওসমান। তিনি বলেন, ঈদের পর আপনাদের নিয়ে  সুন্দর নারায়ণগঞ্জ গড়তে মাঠে নামব। সবাই সত্যিটা লিখবেন। কাউকে ছাড় দেবেন না, প্লিজ! সেটা আমি হলেও ছাড় দেবেন না। 

শামীম ওসমান তরুণ প্রজন্ম ও সাংবাদিকসহ সমাজের মেধাসম্পন্ন নাগরিকদের এগিয়ে আসার আহ্বান জানান এবং সুস্থ-ধারার সাংবাদিকদের নিরাপত্তা নিশ্চিত করার আশ্বাস দিয়ে অপসাংবাদিকতা বন্ধ করতে সবাইকে সতর্ক করে দেন।

রবিবার দুপুরে ফতুল্লার অক্টোফিস এলাকায় মরহুম সামসুজ্জোহা স্টেডিয়ামের কনফারেন্সরুমে করোনাকালে নানা সমস্যায় পতিত ক্রীড়া সংশ্লিষ্টদের প্রধানমন্ত্রীর অনুদান প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

দেশের বিরুদ্ধে আবারো ষড়যন্ত্র চলছে মন্তব্য করে শামীম ওসমান বলেন, দেশকে আবারো পঁচাত্তরের মতো ভয়াবহ পরিস্থিতিতে নিয়ে যেতে বিদেশের মাটিতে গভীর ষড়যন্ত্র হচ্ছে। করোনা দুর্যোগকালীন নানা সমস্যায় জর্জরিত জেলার বিভিন্ন ক্রীড়াবিদ ও সংশ্লিষ্টদের সাহায্যার্থে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া অনুদান প্রদান অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ আশঙ্কা কথা জানান।

দেশের শিক্ষিত সমাজ নানা অপকর্ম ও দুর্নীতিতে জড়িয়ে পড়ছে জানিয়ে শামীম ওসমান বলেন, জাতীয় সংসদের অধিবেশনসহ প্রধানমন্ত্রীর সামনে তিনি এসব ন্যায্য কথা তুলে ধরবেন এবং কাউকে ছাড় দেবেন না।
শামীম ওসমান এসময় উন্নয়ন কাজের মাধ্যমে নারায়ণগঞ্জকে ঢেলে সাজানোর পরিকল্পনার কথাও জানান। তিনি বলেন, আগামী দেড় থেকে দুই বছর পর নারায়ণগঞ্জের রূপ পাল্টে যাবে এবং এই জেলা রাজধানী ঢাকার চেয়েও মনোমুগ্ধকর সুন্দর এলাকায় পরিণত হবে। ঈদুল আযহার পরই কাজ শুরু করা হবে।

ঢাকার চেয়েও সুন্দর নারায়ণগঞ্জ গড়ার যে স্বপ্ন তিনি দেখছেন তা শিগগিরই বাস্তবায়ন হবে জানিয়ে সাংসদ শামীম ওসমান বলেন, এই উদ্দেশ্যে বাস্তবায়ন হলে নারায়ণগঞ্জ নাগরিক সমাজের সব ধরনের সুযোগ সুবিধা-সম্পন্ন পরিপূর্ণ একটি জেলা হিসেবে গড়ে উঠবে। উন্নয়ন প্রকল্পের কাজগুলো সম্পন্ন হয়ে গেলে নারায়ণগঞ্জ পুনরায় প্রাচ্যের ডান্ডিতে পরিণত হবে বলেও আশা প্রকাশ করেন এই আওয়ামীলীগ নেতা।  সেই লক্ষ্যে ঈদুল আযহার পর জেলার বিভিন্ন পর্যায়ে নেতৃবৃন্দকে নিয়ে বসবেন জানিয়ে শামীম ওসমান বলেন, যেখানে অনিয়ম দেখব সব ঠিক করে দেবো। কোন অনিয়ম আমি রাখবো না।

অনুষ্ঠানে করোনা দুর্যোগকালীন সময়ে জেলার বিভিন্ন-স্তরের ক্ষতিগ্রস্ত খেলোয়াড়, প্রশিক্ষক ও সংগঠকদের মধ্যে ৭০ জনকে প্রধানমন্ত্রীর দেয়া আর্থিক অনুদান প্রদান করা হয়। প্রত্যেককে নগদ সাত হাজার টাকা করে পাঁচ লক্ষ টাকার অনুদানের চেক তুলে দেন শামীম ওসমান।

সভাপতিত্ব করেন জেলা প্রশাসক জসীম উদ্দিন। আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা ক্রীড়া সংস্থার সাধারণ সম্পাদক তানভীর আহমেদ টিটু, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক শামীম বেপারী, ক্রীড়া সংগঠক ইব্রাহীম চেঙ্গিস ও জাতীয় দলের সাবেক ফুটবলার গোলাম রসূল গাউসসহ বিভিন্ন ক্রীড়াবিদ।

নিউজটি শেয়ার করুন...

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Recent Comments

    © All rights reserved © 2023
    Design & Developed BY M Host BD