বুধবার, ১৭ এপ্রিল ২০২৪, ১২:৩৬ অপরাহ্ন

কুতুবপুরে শীর্ষ সন্ত্রাসী খোকন বাহিনীর তান্ডব

নারায়ণগঞ্জের খবর: আবারও অশান্ত হয়ে উঠেছে নারায়ণগঞ্জ সদর উপজেলার কুতুবপুর অঞ্চল। এবার কুতুবপুরের ত্রাস সন্ত্রাসী এমওএফ খোকন বাহিনীর হামলায় আহত হয়েছেন দুই যুবক। এদের মধ্যে একজন গুরুতর আহত হয়েছেন। ঘটনার পর থেকে গোটা অঞ্চলে তুমুল আতঙ্ক বিরাজ করছে।
প্রত্যক্ষদর্শী ও এলাকাবাসীর সূত্রে জানা যায়, করোনাভাইরাসের কারণে উদ্ভুত পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে প্রশাসনের নির্দেশে মাঠে কাজ করে যাচ্ছেন তরুণ প্রজন্মের বেশ কয়েকজন৷ কুতুবপুরেও অনেকে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতকরণে কাজ করে যাচ্ছেন। গতকাল বুধবার  বিকেল ছয়টা নাগাদ স্থানীয় মুরুব্বিরাসহ সচেতন তরুণেরা আমতলীতে সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিতকল্পে কাজ করতে থাকেন। এ সময় খোকনের ভগ্নিপতি, আমতলীর চিহ্নিত মাদক ব্যবসায়ী, মাদকাসক্ত, ছিনতাইকারী শ্যামল তার বাহিনীর সদস্যদের নিয়ে সামাজিক দূরত্ব না মেনে মাস্কবিহীন অবস্থায় আড্ডা দিচ্ছিলেন।
তরুণেরা তাঁদের সামাজিক দূরত্ব নিশ্চিত করতে অনুরোধ করেন। কিন্তু শ্যামল বাহিনী তা না মেনে তরুণদের প্রাণে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। একপর্যায়ে মুরুব্বিদের হস্তক্ষেপে তরুণেরা সেখান থেকে চলে আসেন৷
কিন্তু তারা নিশ্চিন্তপুরের মায়ের দোয়া কমিউনিটি সেন্টারের সামনে পৌঁছানোমাত্র শীর্ষ সন্ত্রাসী খোকনের নির্দেশে ছেন, রড, হকিস্টিক নিয়ে শ্যামলের নেতৃত্বে ২০-২৫ জনের সন্ত্রাসী বাহিনী হামলা করে। জনসম্মুখে তারা স্থানীয় ব্যবসায়ী ফারুক (৩৫), নুরুল আমিন তুষার (২৮) কে আহত করে। মুরুব্বি ও প্রত্যক্ষদর্শীরা তাদের ফেরানোর চেষ্টা করেও লাভ হয়নি।
একপর্যায়ে ওই তরুণদের মেরে ফেলার হুমকি দিয়ে শ্যামল বাহিনী ঘটনাস্থল ত্যাগ করে। গুরুতর আহত ফারুকের মাথা ফেটে প্রচুর রক্তক্ষরণ হওয়ায় তার মাথায় আটটি সেলাই দেওয়া হয়েছে।
এদিকে খোকন, শ্যামল বাহিনীর বিরুদ্ধে মামলা করতে থানায় গেলেও, ওই বাহিনীর মেরে ফেলার হুমকিতে মামলা করতে পারেননি ফারুক। পরবর্তীতে আহত আরেক যুবক নুরুল আমিন তুষার বাদী হয়ে খোকন, শ্যামলসহ অজ্ঞাত আরো কয়েকজনের নামে সাধারণ ডায়েরি দায়ের করেন।
অনুসন্ধানে জানা যায়, শীর্ষ সন্ত্রাসী খোকন, শ্যামল বাহিনীর অত্যাচারে অতিষ্ঠ কুতুবপুরবাসী। খোকন কুতুবপুরে ইয়াবার বড় ডিলার নামে পরিচিত।হত্যা, সন্ত্রাস, জবরদখল,ছিনতাইসহ খোকনের বিরুদ্ধে বিভিন্ন দপ্তরে ৫১টি অভিযোগ রয়েছে বলে জানা যায়। তার ভগ্নিপতি শ্যামল অত্র অঞ্চলে কুখ্যাত মাদক ব্যবসায়ী, ছিনতাইকারী হিসেবে পরিচিত। মূলত খোকনের প্রভাবেই শ্যামল ওই অঞ্চলের জনসাধারণকে জিম্মি করে রেখেছে। শ্যামলের স্ত্রীর বিরুদ্ধে লো অত্র অঞ্চলে মাদক ব্যবসা, পতিতাবৃত্তির অসংখ্য অভিযোগ রয়েছে।
এদিকে খোকন, শ্যামলের এই নারকীয় তান্ডবে কুতুবপুরে ব্যাপক আতঙ্ক ছড়িয়েছে। এলাকায় থমথমে অবস্থা বিরাজ করায় প্রশাসন সতর্কাবস্থায় রয়েছে।
নিউজটি শেয়ার করুন...

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Recent Comments

    © All rights reserved © 2023
    Design & Developed BY M Host BD