নন্দলালপুরের রাশেদ লেবাননে নিহত

19
নিজস্ব প্রতিবেদক: লেবাননের বিস্ফোরণে নিহত রাশেদের বাড়ি ফতুল্লার কুতুবপুরের নন্দলালপুর বিসমিল্লাহ বেকারী মসজিদ গলি এলাকায়। নিহতের বাড়িতে চলছে কান্নার আহাজারি ও চলছে শোক ।
লেবাননের রাজধানী বৈরুতে ভয়াবহ বিস্ফোরণের পর নিখোঁজ নারায়ণগঞ্জের যুবক মোহাম্মদ রাশেদকে একটি হাসপাতালে মৃত অবস্থায় পাওয়া গেছে । লেবাননের বাংলাদেশ দূতাবাস থেকে নিশ্চিত করা হয়েছে, মৃত মোহাম্মদ রাশেদ নারায়ণগঞ্জের বাসিন্দা। তার বাবার নাম র্মৃত হাফিজুর রহমান, মাতার নাম লুৎফর নেছা। রাশেদরা দুই ভাই দুই বোন. ভাইদের মধ্যে রাশেদ সবার বড়। তিনি লেবাননে ৬ বৎসর একটি হোটেলে কাজ করতেন।
জানা গেছে, বিস্ফেরণ এলাকা থেকে ৪০০ গজদূরে ঝিমাইজি এলাকায় একটি রেস্টুরেন্টে কাজ করতেন মোহাম্মদ রাশেদ। মঙ্গলবার বিস্ফেরণের পর থেকে তিনি নিখোঁজ ছিলেন। শনিবার দুপুরে জলদ্বীপ এলাকার হারুন হাসপাতালে তার মৃত পাওয়া গেছে। নিহতের স্বজনরা মরদেহ শনাক্ত করেছেন।
উল্লেখ্য, লেবাননের বৈরুতে গত ৪ আগস্ট ভয়াবহ দুটি বিস্ফেরণে বায়লাদেশ নৌবাহিনীর ২১ সদস্যসহ ১০৮ প্রবসী আহত হন। এই বিস্ফোরনে মারা গেছেন পাঁচ বাংলাদেশী
নিউজটি শেয়ার করুন...